কোরবানির চাহিদা মেটাবে ৪৫ লাখ দেশীয় পশু

২০১৬ সালে দেশে কোরবানিযোগ্য গরু-মহিষের সংখ্যা
ছিল ৪৪ লাখ ২০ হাজার। আর ছাগল-ভেড়ার চাহিদা ছিল ৭০ লাখ ৫০ হাজার। এ চাহিদার শতভাগ
মেটানো হয়েছিল দেশীয় পশুর মাধ্যমেই। এ বছরও ৪৪ থেকে ৪৫ লাখ পশু কোরবানি হওয়ার
সম্ভাবনা রয়েছে। দেশের কৃষকদের খামারে পালিত পশু দিয়েই এই চাহিদা মেটানো সম্ভব।
কারণ এ বছরও ক্ষুদ্র এবং মাঝারি খামারিদের কাছ থেকে পাওয়া যাবে ৩০ থেকে ৩২ লাখ
গরু। আর গৃহস্থের ঘরে পালিত গরু ও মহিষ পাওয়া যাবে ১০ থেকে ১৪ লাখ। আর ছাগল ও ভেড়া
তো আছেই। গত বছর কোরবানিতে দেশে পশু সংকট হয়নি। আর এবারও হবে না। সরকারের পক্ষ
থেকে খামারিদের ব্যাংক ঋণের সুবিধাসহ নানান সহায়তা দেওয়া হচ্ছে। কাজেই খামারিরা
কোরবানির অপেক্ষায় রয়েছে। গত বছরের মতোই কৃষকের ঘরে ও খামারে পালিত দেশীয় গরু-ছাগল
দিয়েই কোরবানির পশুর চাহিদা পূরণ হবে। ভারত থেকে আমদানি না হলে কোরবানিতে গরুর সংকট তৈরি হবে— এমন ধারণা এখন বদলে যাচ্ছে।

Normal
0
false

false
false
false

EN-US
X-NONE
BN

/* Style Definitions */
table.MsoNormalTable
{mso-style-name:"Table Normal";
mso-tstyle-rowband-size:0;
mso-tstyle-colband-size:0;
mso-style-noshow:yes;
mso-style-priority:99;
mso-style-qformat:yes;
mso-style-parent:"";
mso-padding-alt:0in 5.4pt 0in 5.4pt;
mso-para-margin-top:0in;
mso-para-margin-right:0in;
mso-para-margin-bottom:10.0pt;
mso-para-margin-left:0in;
line-height:115%;
mso-pagination:widow-orphan;
font-size:11.0pt;
mso-bidi-font-size:14.0pt;
font-family:"Calibri","sans-serif";
mso-ascii-font-family:Calibri;
mso-ascii-theme-font:minor-latin;
mso-hansi-font-family:Calibri;
mso-hansi-theme-font:minor-latin;
mso-bidi-font-family:Vrinda;
mso-bidi-theme-font:minor-bidi;}

আপনার রেটিং: None

Rate This

আপনার রেটিং: None