ইমাম মাহদীর নিজের ভাষায় তাঁর আবির্ভাব পিছিয়ে যাওয়ার রহস্য

ইমাম
মাহদী(আ.) বলেছেন, আমাদের শিয়ারা আমাদের সাথে যে অঙ্গিকার করেছে তা যদি
বাস্তবায়ন করত এবং তা ভঙ্গ না করত তাহলে আমার আবির্ভাব ত্বরান্বিত হত।

বার্তা সংস্থা ইকনা'র রিপোর্ট: পবিত্র
ইমামগণের ভাষায় ইমাম মাহদীর আবির্ভাব পিছিয়ে যাওয়ার একটি বড় কারণ হচ্ছে তাঁর অনুসারীদের
অঙ্গিকার ভঙ্গ করা।

যদি আমরা গোনাহ না করি এবং সঠিকভাবে ইমাম মাহদীর আবির্ভাবের জন্য
কাজ করি তাহলে ইমামের আবির্ভাব ত্বরান্বিত হবে।

ইমাম মাহদী(আ.) নিজেই বলেছেন:

«وَ لَوْ اَنَّ أشياعَنا وَ فَقَّهُمُ اللّه
ُ لِطاعَتِهِ، عَلى اجْتِماعٍ مِنَ الْقُلُوبِ فى الْوَفاءِ بِالْعَهْدِ عَلَيْهِمْ،
لَما تأخَرَّ عَنْهُمُ الْيُمْنُ بِلِقائنا، وَ لَتَعَجَّلَتْ لَهُمْ السَّعادَةُ بِمُشاهِدَتِنا،
عَلى حقِّ الْمَعْرِفَةِ وَ صِدْقِها مِنْهُمْ بِنا، فَما يَحْبِسُنا عَنْهُمْ إلاّ
ما يَتَّصِلُ بِنا مِمّا نُكْرِهُهُ؛»

আমাদের শিয়াদের অন্তরসমূহ
যদি অঙ্গিকার পূরণ করার জন্য একতাবদ্ধ হত তাহলে তাদের সাথে আমার সাক্ষাত একদণ্ডও পিছাত
না। বরং তারা খুব শীঘ্রই আমাদেরকে দেখার সৌভাগ্য অর্জন করতে পারত। একমাত্র তাদের গোনাহ
ও অন্যায়সমূহই আমাদের থেকে তাদেরকে দূরে সরিয়ে রেখেছে।

হাদিসের ভাষা অনুযায়ী,
যারা সর্বদা আল্লাহর ইবাদত
বন্দেগি করার মাধ্যমে আমাদের কায়েমের আবির্ভাব ত্বরান্বিত হওয়ার ক্ষেত্র প্রস্তুত করে
তারাই আমাদের প্রকৃত অনুসারী।

সুতরাং আমরা যদি গোনাহ পরিত্যাগি
করি এবং ইমামদের সাথে কৃত অঙ্গিকার পূর্ণ করি তাহলে ইমাম মাহদীর আবির্ভাব ত্বরান্বিত
হবে।


iqna

আপনার রেটিং: None

Rate This

আপনার রেটিং: None