নির্মাণ- ফেব্রুয়ারী ২০১১: মননে, চিন্তায়,, গবেষণায়,,,

জগৎ সংসারে কল্যাণ-অকল্যাণ দু'টোই বিদ্যমান। দৃষ্টিভঙ্গি, বিবেচনাবোধ, আন্তরিক আগ্রহ ইত্যাদির প্রভাবে বিভক্ত হয়ে পড়ে মানুষ। যার নিকট যে পথ ভাল লাগে সে সেপথের অনুসরণ ও প্রচারণায় মুখর থাকে। এটাই স্বাভাবিক। অস্বাভাবিক তো তা, যা মানুষকে প্রতারণা করে, কলুষিত করে এ বিশ্বকে, পঙ্কিল করে তোলে মানব সমাজকে এবং ধ্বংস ডেকে আনে নিয়মের নিঃশেষ প্রক্রিয়ার পূর্বেই।
পৃথিবীতে ভালমানুষের সংখ্যা নিতান্ত কম নয়; কিন্তু অচল ভাল মানুষের চেয়ে সচল ভাল মানুষের সংখ্যা নিতান্তই কম। তদুপরি নই ঐক্যের সুদৃঢ় বন্ধন। তাই মন্দ মানুষেরা সংখ্যায় স্বল্প হয়েও আধিপত্য বিস্তার করে যায় চিরদিন অচল ভাল মানুষদের উপর। মূলতঃ জাগ্রত বিবেকের একজন মানুষই পরিচালনা করতে পারে লাখো কোটি অচল ভাল মানুষকে। কিন্তু আমাদের সমাজে যেন আজকাল জাগ্রত সচল ভাল মানুষদের সংখ্যা কমে যেছে কিংবা হয়ত দমিত হয়েছে তারা রাজকীয় উৎপীড়নে, নীপীড়নে, দমনে। এই তো একুশ গেল, চোখ-কান খোলা রাখা অনেকেই দেখেছেন হয়ত, এ যেন কোন নির্বাচনী মৌসুম গেল। সালাম, রফিক, জাব্বার, বরকত যেন এখন সম্মিলিত নির্বাচনী জোটের 'মার্কা'। প্রচারে (আত্মপ্রচারে) কে কাকে পেছনে ফেলবে, রীতিমত ঠেলাঠেলি। বাদ পড়েনি ছবি সম্বলিত পোষ্টার, এমনকি 'দু'গ্রুপ'-এর মধ্যকার সংঘর্ষও। ভাবছি, যদি কিছু সচল বিবেক থেকে থাকে, তো এসব সহ্য করে কিভাবে? যদি নিয়ম থাকতো তবে হয়তে সালাম, জাব্বার, বরকত, রফিকেরা অতীষ্ট হয়ে কবর ভেঙ্গে বেরিয়ে এসে চাপেটাঘাত করতো তাদেরকে 'মার্কা' বানানো এসব 'জাতীয়'(?)-বিজাতীয় নেতাদের প্রচারোন্মুখ অবয়বে। যদি আমরা পারতাম তাদেরকে জিজ্ঞাসা করতে, কি চাও তোমরা এখন আমাদের কাছে? নির্ঘাত তারা জবাব দিত- 'পূজা নয়; প্রার্থনা কর আজ!'
নির্মাণ স'বে মাত্র তার 'নির্মাণ কাজ' শুরু করেছে। স্মরণে জাগিয়ে দিতে চাই আবারো, কোন যাদুর কাঠির ছোঁয়ায় নয়; একটি ছোট্ট 'নির্মাণ' হাতে দিয়ে যে, আমরা যদি চাই তাহলে এ পৃথিবী সুন্দর হতে পারে, শান্তিময় হতে পারে। প্রয়োজন সংকল্পের, প্রয়োজন সাধনার, প্রয়োজন শ্রমের, প্রয়োজন ব্যয়ের এবং প্রয়োজন ভালবাসার। আসুন সত্য নির্মাণ করি আমাদের অন্তরে, আমাদের চিন্তায়, আমাদের গবেষণায়, আমাদের প্রিয় এই পৃথিবীতে...।

মদীনা মুনাওয়ারা।

আপনার রেটিং: None গড় রেটিং: 5 (টি রেটিং)

Rate This

আপনার রেটিং: None গড় রেটিং: 5 (টি রেটিং)