নাই সুসময়

ঘন সবুজের সমারোহ
লকুজ লকুজ লম্বা দেহ
ছিপছিপে ডাগর ডাগর ভরপুর যৌবন
বাতাশের সাথে চলছে বেশ রঙ্গ আলাপন

মনে করে দিল ছেলেবেলার কথা পাশ দিয়ে যেতাম ভয়ে ভয়ে
ছেলেমেয়ে ধরারা ওত পেতে থাকে সুযোগ পেলে যেত ধরে নিয়ে
আলপথের দুই ধারের গাছ মাঝে মাঝে আলিঙ্গন মমতায়
বিছুটি পোকা ভয় ভয় যেন ছোট খাট বন সীমা শেষ কোথায়

গাছগুলি কাটাবে বড় হাঁসুয়া দিয়ে কয়েক দিন পরে
বাঁশের চাটায় বেঁধে পচানো হবে কয়েক সপ্তাহ ধরে
ডোবা বা বড় নালা বিলের জলে,
কৃষকের নৃত্য হেলেদুলে পেশীফুলে
আঁশ ছাড়ানো পাট ও কাটিগুলি আর এক পাশে
বাঁশের আড়ে শুকানো প্রাকৃতিক গন্ধ মজা ভাসে

শুকানোর পর মেপে বাজারে বিক্রয়
আগের মত নাই দাম, নাই সুসময়
কালের বিবর্তনে আজ সোনালি আঁশ
কৃষকের মাঝে মাঝে বাড়ায় হুতাশ

আপনার রেটিং: None গড় রেটিং: 5 (টি রেটিং)

পাটের সোনালী অতীত আবার ফিরে আসুক

ধন্যবাদ ভালথাকুন

বিসর্গে স্বাগতম Smiling

ধন্যবাদ ভালথাকুন

স্বাগতম।

"কালের বিবর্তনে আজ সোনালি আঁশ
কৃষকের মাঝে মাঝে বাড়ায় হুতাশ"

একটা আক্ষেপ নিয়ে শেষ হলো কবিতাটি। তবে শোনা যাচ্ছে পাট নিয়ে আবারো উদ্যোগ বাড়ছে কৃশকের মাঝে।

-

"নির্মাণ ম্যাগাজিন" ©www.nirmanmagazine.com

Rate This

আপনার রেটিং: None গড় রেটিং: 5 (টি রেটিং)