গভীর আকাশের বস্তু।

খালি চোখে চাঁদহীন অন্ধকার আকাশের দিকে তাকালে হাজার হাজার নক্ষত্র দেখতে
পাই।খুব ভালভাবে লক্ষ্য করলে এর সাথে আরো কিছু খ-বস্তু যেমন তারা
স্তবক,নীহারিকা,গ্যালাক্সি ইত্যাদি দেখতে পাবেন।তবে যাদের কাছে দুরবীন আছে
তারা আরো অনেক কিছুই দেখতে পাবেন।গভীর আকাশের এই সব বস্তু দেখতে যে কি
সুন্দর তা এই ছবি গুলিই বলে দেবে।

কডিংটন নীহারিকা: IC 2574 কডিংটন নীহারকা।ই.এফ.কডিংটন (1870-1950) লিক
মানমন্দির থেকে এই নীহারিকাটি আবিস্কার করেন। এছাড়াও তার নামে তিনটি
গ্রহানু আছে,যা তিনি আবিস্কার করেছিলন।তিনি 6″ লেন্সের ক্যামেরায় তোলা একটি
ফিল্মের নেগেটিভ থেকে এটি সর্ম্পকে ধারনা পান।
এটি সর্প্তষী মন্ডলের M81 এবং 82 গ্রুপের সদস্য,এটি আমাদর লোকাল ( Local
Group) গ্রুপ ছায়াপথের নিকটতম প্রতিবেশী।ফটোমেট্রিক (photometric) পরীক্ষায়
দেখা গেছে, IC 2574 এটা নির্দেশ করে যে এর ভরের প্রায় 90 ভাগ আছে ডার্ক
ম্যাটারে (dark matter)।এর দুরত্ব 12 মিলিয়ন আলোকবর্ষ এর অবস্হান সপ্তর্ষী
মন্ডলে।এই মন্ডলের গ্যালাস্কী M81 এর পাশে।10″ দুরবীন দিয়ে একদম অন্ধকার
স্হান থেকে এর ডিম্বাকৃতি অংশ দেখা যায়।রাশিয়ার অ্যাস্টোফিজি্ক্যাল
মানমন্দির এর জ্যেতির্বিদরা অত্যাধুনিক পরিমাপক যন্ত্র দিয়ে এই নীহারিকাটির
দরত্ব মাপতে সক্ষম হন,এটি ছায়াপথ থেকে 12 মিলিয়ন আলোবর্ষ দুরে আছে।

ছবি: 
আপনার রেটিং: None গড় রেটিং: 5 (টি রেটিং)

Rate This

আপনার রেটিং: None গড় রেটিং: 5 (টি রেটিং)